পরিকল্পনাটা অনেক আগের। এবার তা বাস্তবায়নের পথে। সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে হচ্ছে দেশের প্রথম ক্রিকেট মিউজিয়াম। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ঢাকা, চট্টগ্রাম, খুলনার পর সিলেটের যাত্রা শুরু হলেও আধুনিক ক্রিকেটের সব সুযোগ-সুবিধা নিয়ে অবকাঠামোগত উন্নয়নে দেশের অন্যসব ক্রিকেট পাড়াকে পেছনে ফেলছে সিলেট।

সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়াম-১ এর পাশাপাশি সিলেট ক্রিকেট গ্রাউন্ড-২ এখন প্রায় প্রস্তুুত। গ্রাউন্ড-১’র আন্তর্জাতিক অভিষেক হয়েছে, টেস্ট ও ওয়ানডে ম্যাচও হয়েছে। গ্রাউন্ড-২ আইসিসির স্বীকৃতির অপেক্ষায় আছে। বিসিবির আঞ্চলিক ক্রিকেট একাডেমিও তৈরি হচ্ছে সিলেটে। স্টেডিয়ামের অভ্যন্তরেই আছে আধুনিক জিম সেন্টা।

দু’টি স্টেডিয়ামের পাশেই আবার তৈরি হচ্ছে অনুশীলন গ্রাউন্ড। এক সঙ্গে একাধিক দল অনুশীলন করতে পারবেন অনুশীলন গ্রাউন্ডে। যেখানে অনুশীলনের জন্য টার্ফের এবং কৃত্তিম মিলিয়ে কুঁডিটির মতো উইকেট থাকবে। দেশের প্রথম ক্রিকেট জাদুঘরও হতে যাচ্ছে সিলেট ক্রিকেট স্টেডিয়ামে।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পথচলা বেশি দিনের নয়। তবু্ও এই ক’দিনে অনেক স্মৃতি জমা হয়েছে। উপ-মহাদেশের প্রথম ক্রিকেট ম্যাচও আয়োজন হয়েছিলো এই সিলেটেই। ধীরে ধীরে আরো সমৃদ্ধ হবে সিলেটের ক্রিকেটাঙ্গণ। সেই সব স্মৃতি স্মারক জমিয়ে রাখতে, নতুন প্রজন্মের কাছে পৌঁছে দিতে সিলেট বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থা স্টেডিয়াম এলাকায় ক্রিকেট মিউজিয়াম তৈরি করছে।

করোনাকালীন পরিস্থিতির কিছুটা উন্নতি হলেই মিউজিয়ান তৈরির কাজ শুরু হবে। স্টেডিয়ামের গ্যালারীর কোন এক অংশে এই মিউজিয়াম তৈরির পরিকল্পনা আছে বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থার। জানিয়েছেন সিলেট বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক, বিসিবি পরিচালক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল। এই ক্রীড়া সংগঠকের দক্ষ নেতৃত্বে ক্রিকেটাঙ্গণে এখন সিলেট অনেক এগিয়েছে। তিনি এবার ক্রিকেট মিউজিয়ামও তৈরির স্বপ্ন দেখছেন।

বাংলাদেশের আর কোনো ভেন্যুতেই নেই ক্রিকেট মিউজিয়াম। দেশের ক্রিকেটের ইতিহাস-ঐতিহ্য স্মারক সংরক্ষণের কোনো উদ্যোগ নেই কেন্দ্রীয় ভাবে। তবে সিলেট বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থা স্থানীয় ভাবে নিজেদের ক্রিকেটের ইতিহাস-ঐতিহ্য সংরক্ষণের উদ্যোগ নিচ্ছে। যেখানে থাকবে দেশের ক্রিকেট ইতিহাসও।

ক্রিকেট মিউজিয়ামটি সবার জন্য উন্মোক্ত থাকবে। যে কেউ চাইলে প্রবেশ করতে পারবেন। দেখে নিতে পারবেন দু’টি পাতা একটি কুঁড়ির শহরের ক্রিকেট ইতিহাস। বিসিবি পরিচালক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল বৃহস্পতিবার দুপুরে বলেন, ‘স্টেডিয়ামের অভ্যন্তরে ক্রিকেট মিউজিয়াম করার পরিকল্পনা আমাদের পুরনো। আমরা সেটি বাস্তবায়নের চেষ্টা করছি। স্টেডিয়ামের গ্যালারীর কোনো একটা অংশকে আমরা মিউজিয়ামে রুপান্তর করবো।’-এসএনপি স্পোর্টস 

এবিটিভির সর্বশেষ প্রতিবেদন-

বিয়ানীবাজার পৌরসভার দাসগ্রাম রোড বেহাল, নেই ড্রেনেজ ব্যবস্থা