সিলেট বিভাগে করোনাভাইরাস শনাক্তের হার কমেছে। এর আগে টানা ৩ সপ্তাহ শনাক্তের হারের ঊর্ধ্বগতির পর গতকাল মঙ্গলবার কমে ২৭ দশমিক ৪৭-এ নেমে এসেছিল। এরআগে শনাক্তের হার ৩০–এর ওপরে ছিল। একদিনের ব্যবধানে সিলেট বিভাগে শনাক্তের হার আরও কমে এসেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ২ হাজার ২৬৫ জনের নমুনা পরীক্ষায় ৪১৪ জনের করোনা শনাক্ত করা হয়। শনাক্তের হার ১৮ দশমিক ১১।

একই সময়ে করোনায় বিভাগে মারা গেছেন ১২ জন। মৃত ব্যক্তিদের মধ্যে সিলেট জেলার ১০ জন এবং সুনামগঞ্জ ও হবিগঞ্জের একজন করে আছেন। এ নিয়ে বিভাগে করোনায় ৯৩১ জনের মৃত্যু হয়েছে। বিভাগে করোনা শনাক্ত হয়েছে ৫০ হাজার ৪২ জনের। বুধবার (১৮ আগস্ট) দুপুরে সিলেট বিভাগীয় স্বাস্থ্য বিভাগের পাঠানো প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানা গেছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় বিভাগে নতুন শনাক্ত ব্যক্তিদের মধ্যে সিলেট জেলার ১২৩ জন, সুনামগঞ্জের ৭৯ জন, হবিগঞ্জের ১০৮ জন ও মৌলভীবাজারের ১০৪ জন। এ নিয়ে বিভাগে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫০ হাজার ৪২। এর মধ্যে সিলেটের বাসিন্দা ২৬ হাজার ৮৪৪ জন, সুনামগঞ্জের ৫ হাজার ৭৫৪ জন, হবিগঞ্জের ৬ হাজার ৪৪ জন ও মৌলভীবাজারের ৭ হাজার ১৯০ জন।

সিলেট বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক হিমাংশু লাল রায় বলেন, সিলেট বিভাগে বিভিন্ন হাসপাতালে বর্তমানে চিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যা ৮০৮ জন। এর মধ্যে ৭০৭ জন চিকিৎসা নিচ্ছেন সিলেট জেলার বিভিন্ন হাসপাতালে। এ ছাড়া সুনামগঞ্জের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন ৩৮ জন, হবিগঞ্জে ৩৮ জন ও মৌলভীবাজারে ২৫ জন। তিনি বলেন, করোনা সংক্রমণ রোধে সবাইকে সচেতন হতে হবে। তিনি করোনার টিকা নিতে এবং সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে আহ্বান জানান।

এবিটিভির বিশেষ প্রতিবেদন

বিয়ানীবাজার জনকল্যাণ সংস্থা ইউএইর উদ্যোগে উপজেলা হাসপাতালে অক্সিজেন সিলিন্ডার হস্তান্তর