পা খানা রয়ে গেল প্রিয় মোটরসাইকেল। এক পা বিচ্ছিন্ন নিথর দেহ পড়ে রইলো সড়কে। অকালে ঝরে গেল একটি তাজা প্রাণ। মর্মান্তিক এ সড়ক দুর্ঘটনা ঘটেছে দক্ষিণ সুরমার পারাইরচকে। ট্রাকচাপায় জুয়েল আহমদ (২৫) নামের এক মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছেন সেখানে। আহত হয়েছেন অপর দুইজন।

আজ শনিবার বেলা সোয়া ২টার দিকে সিলেট-ফেঞ্চুগঞ্জ সড়কের পারাইরচকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। জুয়েল ফেঞ্চুগঞ্জে একটি বিয়ের অনুষ্ঠানে যাচ্ছিলেন।

ফেঞ্চুগঞ্জে একটি বিয়ের অনুষ্ঠানে যোগ দিতে মোটরসাইকেলে (সিলেট-ল-১১-৫৭১০) করে যাচ্ছিলেন জুয়েল। তার সাথে ছিলেন রানা ও হোসাইন নামের আরো দুই যুবক। পারাইরচকে যাওয়ার পর বিপরীত দিক থেকে আসা একটি দ্রুতগতির ট্রাক (সিলেট-ট-১১-০৬৫৭) মোটরসাইকেলটিকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যান জুয়েল। আহত রানা ও হোসাইনকে উদ্ধার করে ওসমানী হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।

এদিকে, দুর্ঘটনার পর ট্রাকচালক আবুল হোসেনকে আটক করা হয়েছে। তিনি সুনামগঞ্জের ছাতক উপজেলার মোতাহির হুসেনের ছেলে বলে জানা গেছে।

এ ব্যাপারে নগরীর মোগলাবাজার থানার ওসি খায়রুল ফজল বলেন- দুর্ঘটনায় এক যুবক নিহত হয়েছেন। আহত অপর দুজনকে ওসমানী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।