বিয়ানীবাজার নিউজ ২৪। ০১ এপ্রিল ২০১৭।

মৌলভীবাজার বড়হাট জঙ্গি আস্তানার ভেতরে সকালে ঢুকে পড়ে স্পেশাল উইপন্স অ্যান্ড ট্যাক্টিস (সোয়াট) সদস্যরা। বাড়িটিতে ঢুকে গুলি করতে শুরু করেছেন তারা। গোলাগুলির শব্দে কম্পিত হচ্ছে পুরো এলাকা। এক পর্যায়ে গোলাগুলি থেমে গেলে আস্তানার ভেতর তিন জঙ্গির লাশ পড়ে থাকতে দেখা যায়। তাদের একজন মহিলা ২জন পুরুষ।

শনিবার (০১ এপ্রিল) সকাল পৌণে ৯টার দিকে তারা আবারও অপারেশন ম্যাক্সিমাস শুরু হয়।।

ঘটনাস্থলে উপস্থিত বিভিন্ন সূত্র জানিয়েছে, সাড়ে ১০টার পর থেকে ভেতরে প্রচন্ড গুলির শব্দ শোনা যায়। ধারনা করা হচ্ছে আজই (১এপ্রিল শনিবার)  ‘অপারেশণ ম্যাক্সিমাস’ সমাপ্ত ঘোষণা করা হতে পারে। এর আগে শুক্রবার (৩১ মার্চ) সন্ধ্যায় অভিযান স্থগিত করা হয়েছিল।

ঘটনাস্থলে উপস্থিত আছেন পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের প্রধান মনিরুল ইসলাম। সাংবাদিকদের তিনি জানিয়েছেন, বাড়িটিতে অনেকগুলো কামরা রয়েছে। তার পাশে আছে যা নির্মাণাধীন আরেকটি ভবন। তাই বড়হাটের অপারেশনটি অনেক জটিল।

২০ কিলোমিটার দূরের নাসিরপুর গ্রামে জঙ্গি আস্তানায় অপারেশন হিট ব্যাকশেষ হওয়ার পর ওই বাড়ি থেকে চার শিশু, দুই নারীসহ সাতজনের ছিন্নভিন্ন লাশ উদ্ধার করা হয় বরে জানিয়েছিল পুলিশ।