সারাদেশে মতো বিয়ানীবাজারের সাধারন মানুষের মধ্যেও করোনাভাইরাসের টিকা গ্রহণে আগ্রহ বাড়ছে। টিকা গ্রহণ করতে প্রতিদিনই বিয়ানীবাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে মানুষজন ভিড় করছেন। অনেককে টিকা নেয়ার পর উচ্ছ্বাস প্রকাশ করতে দেখা গেছে। ৪০ বছর ও তার তদূর্ধ্ব এবং সম্মুখসারীর করোনা যোদ্ধাদের টিকা নিতে দেখা গেছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সূত্রে জানা গেছে, মহামারি করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে গত ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে বিয়ানীবাজার উপজেলায় করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) টিকাদান কার্যক্রম শুরু হয়েছে। এরপর অনলাইনে রেজিস্ট্রেশন এবং হাসপাতালে গিয়ে রেজিস্ট্রেশন করার মাধ্যমে পর্যায়ক্রমে প্রতিদিন সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৩টা পর্যন্ত উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের দুটি পৃথক বুথে করোনার বিনামূল্যে টিকাদান কার্যক্রম চলমান রয়েছে। রবিবার সর্বশেষ ৩শত ৪০জন গ্রহীতা টিকা গ্রহণ করেছেন। সবমিলিয়ে এই পর্যন্ত বিয়ানীবাজার উপজেলার ১ হাজার ৬শত ৫১ জন মানুষ এই টিকা গ্রহণ করেছেন।

বিয়ানীবাজার উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মোয়াজ্জেম আলী খান চৌধুরী বলেন, ৪০ বছর থেকে ঊর্ধ্বের যেকোন বয়সী মানুষ নিবন্ধন করার মাধ্যমে টিকা নিচ্ছেন। দিন দিন টিকা গ্রহণকারীদের সংখ্যা বাড়ছে। এ পর্যন্ত ১ হাজার ৬ শত ৫১জন মানুষ ভ্যাকসিন গ্রহণ করেছেন।

এবিটিভির সর্বশেষ প্রতিবেদন-

অর্থাভাবে বন্ধ মসজিদের কাজ : পাশে বিয়ানীবাজারের কয়েকজন প্রবাসী, অন্যদেরও আহবান