সিলেটের বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী বলেছেন, আইনের সঠিক প্রয়োগ, স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতার মাধ্যমে সেবা প্রদান করে জনগনের চাহিদা পুরণে সরকারি কর্মকর্তা ও জনপ্রতিনিধিদের সচেষ্ট থাকতে হবে। অগ্রাধিকার ভিত্তিতে বিশেষ সমস্যা সমাধানের পদক্ষেপ গ্রহণ, বাল্য বিবাহ, যৌতুক ও মাদকসহ অসামাজিক কার্যকলাপ প্রতিরোধে জন সচেতনতা বৃদ্ধি করে ডিজিটাল প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে দেশকে এগিয়ে নিয়ে নিতে হবে। তিনি সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ থেকে শিক্ষার্থীদের রক্ষা করতে স্কাউটিং কার্যক্রম জোরদারের আহ্বান জানিয়ে বলেন, উন্নয়নের মূল চালিকা শক্তি শিক্ষা, যোগাযোগ ও বিদ্যুৎ ব্যবস্থার অগ্রগতিতে সরকারের বিশেষ দৃষ্টি রয়েছে।

মঙ্গলবার দুপুর ২টায় বিয়ানীবাজার উপজেলা মিলনায়তন কক্ষে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে আয়োজিত মত বিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। মতবিনিময় সভায় উপস্থিত ছিলেন উপজেলার জনপ্রতিনিধি, মুক্তিযোদ্ধা, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি, সাংবাদিক প্রতিনিধি, ব্যবসায়ীক সমিতির নেতৃবৃন্দসহ শ্রেণিপেশার মানুষ।

সিলেটের জেলা প্রশাসক এম কাজী এমদাদুল ইসলাম এর সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন বিয়ানীবাজার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী আরিফুর রহমান। এ সময় তিনি গত এক বছরে উপজেলা প্রশাসনের কার্যক্রম প্রজেক্টরের মাধ্যমে বিভাগ ও জেলার সর্বোচ্চ দায়িত্বশীল এ দুই কর্মকর্তার সামনের উপস্থাপন করেন।

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. মাসুম মিয়ার সঞ্চালনায় মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন, উপজেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা ডা. রঞ্জিত কুমার আচার্য, বিয়ানীবাজার প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক খালেদ জাফরী, মাথিউরা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সিহাব উদ্দিন ও বিয়ানীবাজার জার্নালিস্ট এসোসিয়েশনের সভাপতি আহমেদ ফয়সাল।

মতবিনিময় সভায় বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বিয়ানীবাজার উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আবুল কাশেম পল্লব, পৌরসভার মেয়র মো. আব্দুস শুকুর, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান জামাল হোসেন, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রোকশানা বেগম লিমা, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল হাসিব মনিয়া, সহসভাপতি আব্দুল আহাদ কলা, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন বাবুল, প্রচার সম্পাদক হারুনুর রশিদ দিপু, চারখাই ইউপি চেয়ারম্যান মাহমুদ আলী, শেওলা ইউপি চেয়ারম্যান জহুর উদ্দিন, কুড়ারবাজার ইউপি চেয়ারম্যান এএফএম আবু তাহের, তিলপাড়া ইউপি চেয়ারম্যান মাহবুবুর রহমান, মোল্লাপুর ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল মন্নান, লাউতা ইউপি চেয়ারম্যান গৌছ উদ্দিন, মুড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান আবুল খয়ের, উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা অনুজ চক্রবর্তী, সিনিয়র সাংবাদিক আব্দুল ওয়াদুদ, বিয়ানীবাজার প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মিলাদ মো. জয়নুল ইসলামসহ উপজেলার বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা ও বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সভার শুরুতে উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা পরিষদের পক্ষ থেকে প্রধান অতিথি সিলেটের বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী এবং মতবিনিময় সভার সভাপতি সিলেটের জেলা প্রশাসক এম কাজী এমদাদুল ইসলামকে ফুল দিয়ে বরণ করা হয়।

এর আগে বিয়ানীবাজার উপজেলা পরিদর্শনকালে মঙ্গলবার সকালে তিনি উপজেলার মুড়িয়া ইউনিয়নের সারপার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, বিদ্যালয়স্থ নবনির্মিত মুক্তিযুদ্ধের সময়কালীন টর্চার সেল স্মৃতিসৌধ পরিদর্শন, উপজেলার মুক্তিযোদ্ধাদের সাথে মতবিনিময় করেন, নওয়াগ্রাম বিজিবি ক্যাম্প এবং সীমান্ত হাট স্থাপনের জন্য প্রস্তাবিত স্থান পরিদর্শন করেন।