বিয়ানীবাজার পৌরসভার একটি রাস্তার মাটি সরে গিয়ে রাস্তার সমান্তরালে গ্যাস পাইপ লাইন বেরিয়ে পড়েছে। ফলে ঝুঁকিপূর্ণ এ রাস্তা দিয়ে হেটে ও ছোট যান নিয়ে চলাচল করছেন স্থানীয়রা। মাটির উপরে আসা এ গ্যাস পাইপ লাইন ফেটে বড় কোনো দুর্ঘটনা ঘটতে পারে বলে মনে করছেন স্থানীয়রা। তবে জালালাবাদ গ্যাস কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি অবগত করে চলতি শীত মৌসুমে পাইপ লাইনের সমস্যা সমাধানের চেষ্টা করবেন বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা।

সরজমিন পৌরসভার দাসগ্রামের আব্দুস ছালাম রোড থেকে এই সড়ক দিয়ে যেতে কালাচান মিলন মন্দিরে। কিন্তু এই জায়গায় গিয়ে দেখা যায়, রাস্তাটির ড্রেনের পাশের মাটির নিচ দিয়ে আশপাশের বাসাবাড়িতে গ্যাসের পাইপ নিয়ে যাওয়া হয়েছে। এ রাস্তার বেশিরভাগ অংশের ড্রেনেজ ব্যবস্থা নষ্ট হয়ে যাওয়াতে মাটি সরে গিয়ে গ্যাস পাইপ লাইন বেরিয়ে পড়েছে। এ রাস্তায় ছোট যানবাহন চালাতে অনেক ক্ষেত্রে চালকরা এই পাইপের উপর দিয়ে গাড়ি চালিয়ে নিয়ে যাচ্ছে। পাইপের কারণে গাড়ি চালাতে অনেক বেগ পেতে হচ্ছে তাদেরকে।

এই রাস্তা দিয়ে মোটরসাইকেল নিয়ে চলাচলকারী ইমরান নামে এক যুবক বলেন, রাস্তাটি এমনিতেই সরু, আঁকাবাঁকা। আমরা এই রাস্তা দিয়ে অনেক ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করি। এরমধ্যে রাস্তার উপর বিষফোঁড়া হয়ে এই গ্যাসের পাইপ লাইন দাঁড়িয়েছে। এখন কোন কারণে যদি এই গ্যাস লাইনে কোনো সমস্যা হয় তখন আমরাও বিপদে পড়বো। এখানে রাস্তার ডান পাশে পাইপ লাইন, বাম পাশ ভাঙা। এই ঝুঁকির মধ্যে দিয়ে আমাদের গাড়ি চালিয়ে নিয়ে যেতে হয়।

এদিকে, রাস্তাটির ড্রেনেজ ব্যবস্থার সংস্কার কাজ শুরু করতে এবং গ্যাসের লাইনটি সংরক্ষণের জন্য বিয়ানীবাজার পৌরসভা ও জালালাবাদ গ্যাস কর্তৃপক্ষের সুদৃষতি কামনা করেছেন স্থানীয় এলাকাবাসী।