বিয়ানীবাজার উপজেলায় মেহেরসাগর কলার চাষ করে সফল হয়েছেন আব্দুল মান্নান। উপজেলার দুবাগ ইউনিয়নের দক্ষিণ মেওয়া এলাকায় নিজের ১ বিঘা জমিতে বছর খানেক আগে কলার চাষ শুরু করেন তিনি। প্রবাসী ভাইয়ের অনুেপ্ররণায় সিএনজি চালানোর পাশাপাশি মান্নান প্রথম দফায় প্রচুর কলা বিক্রি করে লাভবান হয়েছেন।

আব্দুল মান্নানের বাগানে রয়েছে সারি সারি কলা গাছ। প্রতিটি গাছেই ঝুলছে কলার ছড়ি। প্রায় দেরশত থেকে ১৮০টির মতো কলা রয়েছে প্রতিটি ছড়িতে। অন্যদিকে, সবকয়টি গাছের গোড়ায় জন্মেছে নতুন চারা গাছ। এই চারা বিক্রির মাধ্যমে উপজেলার মেহের সাগর কলার আবদ বৃদ্ধি পায়ে বলে তার আশা।

চাষি আব্দুল মান্নান জানান, উপজেলা কৃষি বিভাগের পরামর্শে মেহেরসাগর কলার চাষ শুরু করেন তিনি। শুরুতেই চারা ক্রয়, জমি তৈরি ও কলার বাগান পরিচর্যা করতে কিছু টাকা খরচ হলেও। প্রথম দফায় কলা বিক্রি করে তিনি লাভের মুখ দেখেন। মাস দুয়েকের মধ্যে দ্বিতীয় দফায় কলা বিক্রি শুরু করবেন তিনি। কলার পাশাপাশি সরকারি প্রণোদনায় মাল্টা চাষ ও শুরু করেছেন তিনি।

উপজেলা সহকারি কৃষি কর্মকর্তা হিরা লাল বিশ্বাস জানান, উপজেলার বেশিরভাগ এলাকার মাটি কলা উৎপাদনের জন্য খুবই উপযোগী এবং পরিচর্যা করলে প্রতিটি চারায় ফলন আসে। সারা বছরই কলার চাহিদা থাকায়, কলা চাষ খুবই লাভজনক। কলার আবাদ করে দুবাগ এলাকার চাষি মান্নান স্বাবলম্বী হওয়া দেখে স্থানীয় অনেকেই কলা চাষে এগিয়ে আসছে।

এবিটিভির সর্বশেষ প্রতিবেদন-