প্রবাসী অধ্যুষিত বিয়ানীবাজার পৌরশহরে জমে উঠেছে ঈদের কেনাকাটা। বরাবরের মতো এবারও বাজারে রয়েছে ভারতীয় পোশাকের আধিক্য। মেয়েদের ফ্যাশনে আলিয়া ভাট, ইন্ডিয়ান নায়রা, সিকুয়েন্স, সারারা গারারা এবং ছেলেদের ফ্যাশনের ক্ষেত্রে বাজার কাপাচ্ছে সিকুয়েন্স কোর্তা পাঞ্জাবী।

পাঞ্জাবির পাশাপাশি বিভিন্ন দোকানে উঠেছে পাঞ্জাবি, টি-শার্ট, শার্ট-প্যান্টসহ বাহারি ঈদের পোষাক। উঠতি বয়সী কিশোরসহ তরুণ-যুবারা নিজেদের ঈদের কেনাকাটা সেরে নিতে ছুটছেন পছন্দের ফ্যাশন হাউজগুলোতে। পাঞ্জাবি ছাড়াও বিভিন্ন ব্রান্ডের প্যান্ট-শার্টের প্রতিও আকৃষ্ট হচ্ছেন ক্রেতারা।

অন্যদিকে, এবার শাড়িতে খুব একটা আগ্রহ নেই মেয়েদের। শাড়ির চেয়ে দেশি-বিদেশি বাহারি ডিজাইনের সেলোয়ার-কামিজে মেয়েরা আকৃষ্ট হচ্ছেন বেশি। আর বিক্রেতারাও ছেলে-মেয়েদের ফ্যাশনকে প্রাধান্য দিয়ে নিজেদের দোকানগুলো সাজিয়েছেন।

বিক্রেতারা বলছেন, অন্যান্য বারের মতো ছেলেদের ফ্যাশনে পাঞ্জাবিই ক্রেতাদের কাছে প্রথম পছন্দ। তবে দেশি-বিদেশি নানান ধাচের পাঞ্জাবির কালেকশন থাকলেও বাজারে নতুন আগ্রহের মাত্রা যোগ করেছে সিকুয়েন্স কোর্তা নামে একটি পাঞ্জাবি। আর মেয়েদের ফ্যাশনে আলিয়া ভাট, ইন্ডিয়ান নায়রা, সারারা গারারাতে একটা নতুন ক্রেজ তৈরি হয়েছে।

ঈদুল ফেতরের এখনো দুই সপ্তাহ বাকি। এর আগে কেনাকাটা জমে উঠলেও ক্রেতাদের অভিযোগ, পন্যের দাম অনেকটা বেশি।