বিয়ানীবাজার পৌরসভার নির্বাচনে ফলাফল বাতিল হওয়া কেন্দ্র কসবা আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে আজ সোমবার সকাল থেকে শান্তিপূর্ণভাবে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হচ্ছে। সকালের গিয়ে জাল ভোট দেয়ার সময় আটক এক মহিলাকে ভ্রাম্যমান আদালত সাজা প্রদান করেন।

শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট গ্রহণ নিশ্চিত করতে নির্বাচন কমিশন স্টাইকিং ফোর্স ও ভ্রাম্যমান আদালতের সাথে ৩জন ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ করেন। বিপুল সংখ্যক বিজিবি, পুলিশ সদস্যদের কেন্দ্রে রাখা হয়েছে। দুপুর আড়াইটার দিকে কেন্দ্র পরিদর্শনে আসেন সিলেট পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান। এছাড়া ভোট গ্রহণের পূর্ব থেকে কেন্দ্রে দায়িত্ব পালন করে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবুল হাসনাত, সহকারি পুলিশ সুপার মোস্তাক সরকারসহ পুলিশের দায়িত্বশীল কর্মকর্তারা।

সকালের দিকে আকাশ কিছুটা মেঘাচ্ছন্ন ছিল। দুপুরে দিকে রোদ্র উজ্জল আবহাওয়ার মধ্যে ভোটাররা দীর্ঘ সারি ধরে ভোট প্রদান করেন। বিশেষ করে নারী ভোটারদের উপস্থিতি ছিল দেখার মতো। ৬নং বুথের সামনের সারিতে দীর্ঘক্ষণ দাঁড়িয়ে থেকে ভোট দিতে গিয়ে ছবির সাথে নিজের পরিবর্তন রূপটির কারণে বিপাকে পড়ে লিজা বেগম। সব কিছু মিল থাকলেও নয় বছর পূর্বেও ছবি সাথে কোন মিল খুঁজে না পাওয়ায় তাকে জাতীয় পরিচয় পত্র নিয়ে আসতে বলা হয়। লিজা বেগম বলেন, ছোট ভাইকে দিয়ে বাড়ি থেকে জাতীয় পরিচয় পত্র আনিয়ে ভোট দেই। আজকের পরিবেশ খুব ভাল। গত (২৫ এপ্রিল) দিনও ভোট দিয়েছি, তবে এরকম চমৎকার পরিবেশ ছিলনা।
এদিকে সকাল ১০টা দিকে জাল ভোট দেয়ার সময় হেলাল উদ্দিনের স্ত্রী সুফিয়া বেগমকে আটক করা হয়। ভ্রাম্যমান আদালত তাকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করেন, অনাদায়ে ১৫ দিনের জেল প্রদান করেছেন। সুফিয়া বেগমকে কেন্দ্রের একটি কক্ষে আটকে রাখা হয়েছে। তার স্বজনরা ৫ হাজার জরিমানা দিয়ে তাকে ছাড়িয়ে নেন।

ভোট কেন্দ্রে শান্তিপূর্ণ পরিবেশ রয়েছে জানান মেয়র পদে ৯ কেন্দ্রের ঘোষিত ফলাফলে এগিয়ে থাকায় তিন মেয়ল প্রার্থীদেও এজেন্টরা। বিএনপি মেয়র প্রার্থী আবু নাসের পিন্টু’র (ধানের শীষ) এজেন্ট জিয়াউর রহমান বলেন, খুব সুন্দর পরিবেশে ভোট গ্রহণ হচ্ছে। একই রকম কথা বলেন আওয়ামী লীগ মেয়র প্রার্থী আবুদস শুকুর’র (নৌকা) এজেন্ট ওয়াহিদুজ্জামান টিপু ও স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী তফজ্জুল হোসেন (জগ) দেলওয়ার হোসেন।
সুন্দর পরিবেশে ভোট গ্রহণ চলছে জানিয়ে বিএনপি প্রার্থী আবু নাসের পিন্টু বলেন, গত ২৫ এপ্রিল এরকম পরিবেশ থাকলে আজ এখানে আসতে হতো না।

কেন্দ্রের প্রিসাইডিং কর্মকর্তার দায়িত্ব পালন করছেন বিয়ানীবাজার সরকারি কলেজের সহকারি অধ্যাপক আনোয়ারুল হক। তিনি বলেন, দুপুর ৩টা পর্যন্ত কোন ধরনের ঝামেলা হয়নি। এ সময় পর্যন্ত ২ হাজার ৭টি ভোট কাস্ট হয়েছে।

গত ২৫ এপ্রিল দীর্ঘ ১৬ বছর পর বিয়ানীবাজার পৌরসভার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচন কমিশনের দায়িত্বপ্রাপ্ত রিটার্নিং কর্মকর্তা মনির হোসেন ওই দিন  কেন্দ্রের ফলাফল ঘোষণা করেন। পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডের কসবা আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে সংঘর্ষ ও জাল ভোট প্রদানের অভিযোগে ফলাফল বাতিল করা হয়। আজ সোমবার এ কেন্দ্রে পুনর্নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। একেন্দ্রের ভোটার রয়েছে ৩৩৮০- জন। ৮ মেয়র প্রার্থী, ৯ সাধারণ কাউন্সিলর ও ২জন সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।