দরিদ্র জনগোষ্ঠির খাদ্য, বস্ত্র, বাসস্থান, শিক্ষা, স্বাস্থ্য প্রভৃতি ন্যূনতম মৌলিক চাহিদাসমূহ পূরণসহ কর্মস্থান সৃষ্টির মাধ্যমে সমাজের বেকারত্ব দূরীকরণের লক্ষ্য নিয়ে ১৯৯২ সনে বিয়ানীবাজারে যাত্রা শুরু করে মোল্লাপুর ফ্রেন্ডস্ সোসাইটি নামে একটি সামাজিক সংগঠন। প্রতিষ্ঠার পর থেকেই বিয়ানীবাজার উপজেলার শিক্ষার উন্নয়নে ধারাবাহিকভাবে কাজ করে যাচ্ছে এ সংগঠন। গত ৫ জানুয়ারি সংগঠনটি গৌরবোজ্জ্বল ২৯ বছর পেরিয়ে ৩০ বছরে পর্দাপন করেছে। এ উপলক্ষে মঙ্গলবার রাতে কেক কেটে ২৯তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন করেন সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

সোসাইটির সভাপতি ও পৌর কাউন্সিলর আব্দুর রহমান আফজলের সভাপতিত্বে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর আলোচনা সভায় আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি আব্দুস ছালাম মতলিব ও প্রতিষ্ঠাতা কোষাধ্যক্ষ মাহতাবুর রহমান।

সাধারণ সম্পাদক ইমরান হোসেনের সঞ্চালনায় সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন মোল্লাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এম এ মান্নান। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সোসাইটির উপদেষ্টা ডা. মাহবুবুল হক সুজা, শফিক আহমদ, মো. আব্দুশ শহিদ, মোল্লাপুর ইউনিয়ন উচ্চ বিদ্যালয়ের সাবেক সভাপতি সেলিম আহমদ, বিয়ানীবাজার আদর্শ মহিলা কলেজের সহযোগী অধ্যাপক শফিকুর রহমান, বিয়ানীবাজার সরকারি কলেজের খণ্ডকালীন প্রভাষক আরবাব হেসেন খান, পাতন-২ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক লুৎফুল হক ফাইম, সমাজসেবী শাহিন আহমদ ও যুক্তরাজ্য প্রবাসী রাসেল আহমদ।

সভায় বক্তব্য রাখেন সোসাইটির সাবেক সভাপতি শামীম আহমদ, সাব্বির আহমদ, ফ্রান্স প্রবাসী জালাল উদ্দিন, আরব আমিরাত প্রবাসী সালেহ আহমদ, সোসাইটির সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস ছামাদ, কোষাধ্যক্ষ কামরুল হোসেন, শিক্ষা ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক সাংবাদিক তাজবির আহমদ ছাইম, ধর্ম ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক শাহ আলম শাওন ও সদস্য এমাদ হোসেন।

সভায় আমন্ত্রিত অতিথি ও বক্তারা তাদের বক্তব্যে মোল্লাপুর ফ্রেন্ডস্ সোসাইটির বিভিন্ন কার্যক্রমের ভূয়সী প্রশংসা করেন এবং আগামী দিনে সোসাইটির যেকোন ধরনের কার্যক্রমে সার্বিক সহযোগিতার আশ্বাস প্রদান করেন। বক্তারা বলেন, সামাজিক সংগঠন হিসেবে মোল্লাপুর ফ্রেন্ডস্ সোসাইটি দীর্ঘদিন ধরে সমাজের হতদরিদ্র মানুষের পাশে দাড়ানোর পাশাপাশি এতদাঞ্চলের শিক্ষা ব্যবস্থার উন্নয়নে নানাবিদ কর্মসুচি বাস্তবায়ন করেছে- যা সত্যি প্রশংসার দাবিদার। এসময় বক্তারা সোসাইটির আগামীর অগ্রযাত্রায় উত্তরোত্তর সফলতা কামনা করেন।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সোসাইটির উপদেষ্টা আতাউর রহমান, লোকমান আহমদ, আব্দুল কাদির আপ্তাব, এবাদুর রহমান, শিক্ষানুরাগী লায়ন কয়ছর আহমদ, হাজী আব্দুল মন্নান,জামিয়া মালিকিয়া মোল্লাপুর মাদ্রাসার সভাপতি হাজী নাজমুল হক প্রমুখ।

পিঠা উৎসব: প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর আলোচনা সভা শেষে সোসাইটির আয়োজনে দেশীয় সংস্কৃতির অংশ হিসেবে পিঠা উৎসব অনুুষ্ঠিত হয়। নিদনপুর-মোল্লাপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে হরেক রকম পিঠা নিয়ে অংশগ্রহণ করেন সোসাইটির কার্যনিবাহী পরিষদের সদস্যরা। পরে অতিথিবৃন্দ নানা ধরনের পিঠা স্বাদ গ্রহণ করেন। এতে অংশ নেন মোলাপুরসহ আশপাশ এলাকার বিভিন্ন শ্রেণীপেশার মানুষ।

রেজিস্টেশনের উদ্বোধন: পিঠা উৎসব শেষে মোল্লাপুর ফেন্ডস্ সোসাইটির তিন দশক পূর্তি ও পুনর্মিলনী-২০২২ উপলক্ষে রেজিস্টেশন কার্যক্রমের উদ্বোধন করা হয়। পরে একে একে সোসাইটির প্রতিষ্ঠাতাকালীণ সদস্য, সাবেক সভাপতি, সিনিয়র সদস্যসহ প্রবাসী নেতৃবৃন্দ নিবন্ধন ফরম পূরণ করেন।

এবিটিভির সর্বশেষ প্রতিবেদন-

প্রথমবারের মতো বিয়ানীবাজারে নির্মিত হচ্ছে আধুনিক 'ইনডোর ব্যাডমিন্টন স্টেডিয়াম'