গোলাপগঞ্জ পৌরসভার ২০২২-২৩ অর্থ বছরের ৫৭ কোটি ৭৫ লক্ষ লাখ ২০ হাজার টাকার বাজেট ঘোষণা করা হয়েছে।

রবিবার (৩ জুলাই) দুপুর ১২টায় বাজেট ঘোষণা করেন পৌরসভার মেয়র আমিনুল ইসলাম রাবেল।

প্রস্তাবিত বাজেটে মোট আয় ধরা হয়েছে ৫৭ কোটি ৭৫ লাখ ২০ হাজার টাকা এবং মোট ব্যয় ধরা হয়েছে ৫৭ কোটি ২৫ লাখ ২০ হাজার টাকা। বাজেট উদ্বৃত্ত ৫০ লাখ টাকা।

প্রস্তাবিত বাজেটে রাজস্ব আয় ধরা হয়েছে ৫ কোটি ২৭ লাখ ২০ হাজার টাকা এবং প্রকল্প ও সরকার হইতে এডিপি মন্জুরী ৫২ কোটি টাকা। প্রারম্ভিক স্থিতি ৪৮ লক্ষ। বাজেটে রাজস্ব ব্যয় ধরা হয়েছে ৫ কোটি ২৫ লক্ষ ২০ হাজার ও উন্নয়ন ব্যয় ধরা হয়েছে ৫২ কোটি টাকা।

পৌরসভা মিলনায়তনে আয়োজিত বাজেট অনুষ্ঠানের শুরুতে মেয়র আমিনুল ইসলাম রাবেল জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নাম শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করেন। এসময় তিনি ১৫ আগস্টের শহীদের, জাতিয় চার নেতা ও মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে জীবন উৎসর্গকারী বীর শহীদ মুক্তিযুদ্ধ ও বীরঙ্গনাদের শ্রদ্ধার সাথে সম্রণ করেন।

তিনি পৌরসভার যারা ইন্তেকাল করোছেন তাদের স্মরণ করেন।

মেয়র বলেন, গোলাপগঞ্জ পৌরসভাকে একটি মডেল পৌরসভা হিসেবে গড়ে তুলতে তিনিসহ কাউন্সিলরবৃন্দ নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন। নাগরিক সুযোগ-সুবিধা নিশ্চিত করতে ইতোমধ্যে ব্যাপক উন্নয়ন কর্মকাণ্ড বাস্তবায়ন করা হয়েছে। সড়ক নির্মাণ, ওয়াটার ট্রিটমেন্ট প্ল্যান্ট, বৃষ্টির পানি ও পয়ঃনিষ্কাশনের জন্য ড্রেন নির্মাণ, চিকিৎসা-শিক্ষা খাতের উন্নয়ন, যানজট নিরসনসহ পৌরবাসীর সর্বোচ্চ সেবা নিশ্চিত করতে পৌরসভা ব্যাপক পরিকল্পনা গ্রহণ ও বাস্তবায়ন করছে।

পৌরসভার উন্নয়ন কর্মকাণ্ড এগিয়ে নিতে তিনি সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

বাজেট ঘোষণা অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন পৌরসভার প্যানেল মেয়র হেলালুজ্জামান হেলাল।

এসময় উপস্থিত ছিলেন- কাউন্সিলর রুহিন আহমদ খান, জহির উদ্দিন সেলিম, ফজলুল আলম, ফারুক আলী, জবান আলী, জাহেদ আহমদ, নজুরুল ইসলাম, নুরুল আম্বিয়া চৌধুরী জামিল, শিফা বেগম, মনোয়ারা ফেরদৌস, মেহেরুন নেছা প্রমুখ।

এসময় সাংবাদিকবৃন্দ, সুশীল সমাজ, পৌরসভার কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানে বাজেট বক্তব্য শেষে মেয়র উপস্থিত সাংবাদিক ও সুশীল সমাজের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন।

অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কুরআন থেকে তেলাওয়াত করেন, ইঞ্জিনিয়ার নাজমুল হক।