বিয়ানীবাজার উপজেলায় করোনাভাইরাসে (কভিড-১৯) সংক্রমিত রোগী শনাক্তের সংখ্যা অনেকটা কমে এসেছে। করোনাভাইরাস (কভিড-১৯) আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থতার হার বাড়ছে। প্রথমদিকে করোনা রোগীর সেরে উঠার হার কম থাকলেও এখন সংক্রমিতরা দ্রুত সেরে উঠছেন। মঙ্গলবার নতুন করে এ উপজেলা করোনা জয় করেছেন ২১জন। এ নিয়ে উপজেলায় সুস্থ হওয়া রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩৫৮জনে। আর চিকিৎসাধীন রয়েছেন ১৯ জন।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার নতুন করে আরও ১৮জন করোনা রোগী সুস্থ হয়েছেন। তবে আগামী আরও ৭ দিন তাদেরকে হোম কোয়ারেন্টাইন মেনে চলতে হবে। নতুন সুস্থ হওয়া রোগীরা হচ্ছেন- চারখাই ইউনিয়নের নাজমা বেগম (৫০), ৫২ বিজিবি ব্যটালিয়নের সদস্য মোঃ নুরুল হুদা (১৮), বিজিবি সদস্য বিলাল হোসেন (৫২), বিজিবি সদস্য হাবিলদার জাহিদ (৪৩), বিজিবি সদস্য বিএম জুগল (৫৪), তাসমিন নাহার (১২), বিজিবি সদস্য মোঃ কামরুজ্জামান (৩২), বিজিবি সদস্য হাবিলদার নজরুল ইসলাম (৫০), হাবিলদার ফারুক আহমদ (৫০), মিসেস পান্না খাতুন (৩০), মুড়িয়া ইউনিয়নের ঘুঙ্গাদিয়া গ্রামের মসুদ আহমেদ (৪৬), তিলপারার দাসউরার মিসেস শিল্পী ইসলাম (৪৬), দুবাগ ইউনিয়নের মেওয়ার রফিক উদ্দিন (৫৪), ঘুঙ্গাদিয়া গ্রামের মোঃ খলিল উদ্দিন (৬৩), একই গ্রামের রোকেয়া বেগম (৫১), বিজিবি সদস্য নায়েক মোঃ আবুল কালাম আজাদ (৪৩), বিজিবি সদস্য কুক আলম মিয়া (৫৩), ও বিজিবি সদস্য নায়েক মোঃ জহীর আহমেদ (৩৯)।

অন্যদিকে, এ উপজেলায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে ইতোমধ্যে ২১ জন রোগী মৃত্যুবরণ করেছেন। আর সর্বমোট করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩৯৮ জন।

এবিটিভির সর্বশেষ প্রতিবেদন-