বেসরকারি পর্যায়ে পরিচালিত স্বাস্থ্য প্রতিষ্ঠানগুলোকে নিয়মে আনতে দ্বিতীয় দফায় অভিযান শুরু করেছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। দেশব্যাপী চলা এই অভিযানে গত দুই দিনে পাঁচ শতাধিক প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম বন্ধ করা হয়েছে। বেশকিছু প্রতিষ্ঠানকে করা হয়েছে জরিমানাও।

তবে অবৈধ প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম বন্ধ ও জরিমানায় পিছিয়ে আছে সিলেট বিভাগ। এ বিভাগে একটিমাত্র অবৈধ প্রতিষ্ঠান বন্ধ করা হয়েছে। আর কোনো অবৈধ প্রতিষ্ঠানকেই জরিমানা করা হয়নি! সিলেটে বন্ধ হওয়া প্রতিষ্ঠানটি হলো নগরীর নবাব রোড এলাকার নিরাময় পলি ক্লিনিক।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হাসপাতাল ও ক্লিনিক শাখা থেকে প্রাপ্ত তথ্য বলছে, গত সোমবার শুরু হওয়া অভিযানে গতকাল মঙ্গলবার পর্যন্ত সারা দেশে ৫২৪টি বেসরকারি হাসপাতাল, ক্লিনিক, ডায়াগনস্টিক সেন্টার ও ব্লাড ব্যাংক বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে, যেগুলো অবৈধভাবে কার্যক্রম চালাচ্ছিল। এসব প্রতিষ্ঠানকে ৯ লাখ ১৫ হাজার টাকা জরিমানাও করা হয়েছে।

তথ্যানুসারে, দুইদিনের অভিযানে সবচেয়ে বেশি ১৪৯টি অবৈধ প্রতিষ্ঠান বন্ধ হয়েছে খুলনা বিভাগে। এ ছাড়া ঢাকা বিভাগে ১৪৫টি, চট্টগ্রাম বিভাগে ৭৬টি, ময়মনসিংহ বিভাগে ৫৪টি, রাজশাহী বিভাগে ৫৩টি, রংপুর বিভাগে ১৯টি, ঢাকা মহানগরীতে ১৫টি, বরিশাল বিভাগে ১২টি বন্ধ করা হয়েছে। আর সিলেট বিভাগে সর্বনিম্ন একটি স্বাস্থ্য প্রতিষ্ঠান বন্ধ করা হয়েছে।

এদিকে, জরিমানা আদায়ে শীর্ষে রয়েছে রাজশাহী বিভাগ, যেখান থেকে সর্বোচ্চ ৭ লাখ ১৫ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে। ঢাকা বিভাগে এক লাখ, খুলনা বিভাগে ৮০ হাজার টাকা এবং বরিশাল বিভাগে জরিমানা আদায় করা হয়েছে ২০ হাজার টাকা। সিলেট, চট্টগ্রাম, ময়মনসিংহ, রংপুর ও ঢাকা মহানগরীতে কোনো জরিমানা আদায় করা হয়নি।

‌কবিতা পড়ে সভায় বিস্ফোরক মন্তব্য উপজেলা চেয়ারম্যান পল্লবের