১৬ই জুন, ২০১৯ ইং | ২রা আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

আজকের বাজার দর : মাছ-মুরোগ-সবজি’র দাম চড়া ।। তেল-মসলা স্থিতিশীল

https://i2.wp.com/beanibazarnews24.com/wp-content/uploads/2019/04/hen.jpg?resize=1200%2C630

রমজান মাস শুরু হওয়ার এক মাস পূর্ব থেকে বিয়ানীবাজারসহ আশাপাশ এলাকায় মাছ, মুরোগ ও সবজি চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে। রমজান মাসের আগ পর্যন্ত এসব পণ্যের দাম কমার কোন সম্ভবনা নেই বলে জানিয়েছেন ব্যবসায়ীরা।

তবে সয়াবিন তেল, ছোলা (ভূষিমাল)সহ মসলা জাতীয় নিত্য পণ্যের দাম স্থিতিশীল রয়েছে। রমজান মাসেও এসব পণ্যের দাম বৃদ্ধি পাওয়ার কোন আশংকা নেই বলে জানান সংশ্লিষ্ট ব্যবসায়ীরা।

আজ বুধবার বিয়ানীবাজার পৌরশহরে প্রতি কেজি পোলট্রি মুরোগ বিক্রি হচ্ছে ১৫০ টাকা করে। গত সপ্তাহে প্রতি কেজি ১৪০ টাকা করে বিক্রি হয়েছিল। যদিও মার্চের শেষ সপ্তাহে প্রতিকেজি পোলট্রি মুরোগ বিক্রি হয়েছে ১৬০ টাকা করে। প্রতি হালি ডিম (লাল) ৪০ টাকা করে বিক্রি হচ্ছে।  বাজারে সবজি’র দাম ছড়া। শুধুমাত্র আলু কেজি প্রতি বিক্রি হচ্ছে ১৮/২০ টাকা করে, গাজর ৬০ টাকা, টেমেটো ৪০ টাকা, বরবটি (লুবি উরি) ৬০, ঝিঙ্গা ৫০/৬০ টাকা করে বিক্রি হচ্ছে। রমজান মাসের আগে সবজি’র দাম আরও বৃদ্ধি পেতে পারে বলে আশংকা করছেন বিক্রেতারা। বিশেষ করে কাঁচা মরিছ ও ধনিয়া পাতার দাম আগামী সপ্তাহ থেকে বৃদ্ধি পেতে পারে।

পৌরশহরের মাছ বিক্রি বন্ধ রয়েছে গত বছরের সেপ্টেম্বর মাস থেকে। শহরের বাইরের আশপাশ এলাকার বাজারে মাছের দাম খুব চড়া। দেশী এককেজির কাছাকাছি ওজনের রুই মাছ বিক্রি হচ্ছে ৫শ’ থেকে ৭শ’ টাকায়। তবে ভারত থেকে আমদানি করা একই মাছের দাম কিছুটা কম। একইভাবে গাসকার্প, মাছরাঙ্গা, সোনামুখী এসব মাছের দামও দেশী রুই মাছের কাছাকাছি। প্রতি কেজি তেলাপিয়া বিক্রি হচ্ছে ১৪৫ টাকা করে। নদী-বিল থেকে ধরে আনা মাছের দাম আকাশচুম্বি। বোয়াল, আইড়, রিটাসহ এসব মাছে দাম ক্রেতা ও বিক্রেতার দরদাম হাঁকানোর উপর বিক্রি হচ্ছে। এসব মাছের দাম ন্যূনতম কোন গন্ডি নেই।

পৌরশহরের মুরোগ বিক্রেতা পূর্বাশা পোলট্রি’র পরিচালক শাহীন আহমদ বলেন, বাজারে চাহিদার চেয়ে মুরোগ সরবরাহ কম থাকায় দাম বেশি রয়েছে। মাস খানেক আগে থেকে দাম বৃদ্ধি শুরু হয়েছিল। তিনি জানান, বাহ্মনবাড়িয়া থেকে বিয়ানীবাজারে পোলট্রি মুরোগ আমদানি করা হয়।
ভূষিমাল ব্যবসায়ী কয়ছর আহমদ বলেন, পিয়াজ, সয়াবিন তেল, ছোলাসহ নিত্যপণ্যের সব দাম স্থিতিশীল রয়েছে। রমজান শুরু হলেও এসব পণ্যের দাম বাড়ার কোন সম্ভাবনা নেই। তিনি জানান, পিয়াজ প্রতি কেজি সর্বনিম্ন ১৬ টাকা, সয়াবিন তলে ৯২-৯৫ টাকা, ছোলা সর্বনিম্ন ৬৫ টাকা করে বিক্রি করছেন।

A+ A-
Print Friendly, PDF & Email

সর্বশেষ সংবাদ

বিয়ানীবাজার পৌর ছাত্র জমিয়তের ঈদ পুনর্মিলনী ও প্রশিক্ষন সভা সম্পন্ন

প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে আমিরাত সরকারের গোল্ডকার্ড পেলেন বিয়ানীবাজারের মাহতাবুর

জেলা প্রশাসকের সাথে বিয়ানীবাজারের ইউএনওর বার্ষিক কর্মসম্পাদন চুক্তি স্বাক্ষর

গোলাপগঞ্জে মহিলাসহ টাকা ছিনতাই- আটক-১

গোলাপগঞ্জে ইয়াবাসহ মাদক কারবারি আটক

সংক্ষিপ্ত সফর শেষে দেশে পৌর মেয়র আব্দুস শুকুর- বিমানবন্দরে অভ্যর্থনা

ঘোষণাঃ