২১শে মার্চ, ২০১৯ ইং | ৭ই চৈত্র, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

শক্ত অবস্থানে আনারস-হেলিকপ্টার- চমক দেখাতে পারে মোটর সাইকেল

https://i0.wp.com/beanibazarnews24.com/wp-content/uploads/2019/03/1234.jpg?resize=1200%2C630

আজ পরে কাল পঞ্চম উপজেলা পরিষদ নির্বাচন। এ নির্বাচনের শুরু থেকেই নির্বাচনী মাঠ ছিল চেয়ারম্যান প্রার্থী আবুল কাশেম পল্লবের অনুকুলে। একঝাঁক উজ্জীবিত কর্মী-সমর্থকদের প্রাণপন চেষ্টায় পল্লবের হেলিকপ্টার প্রচারণার শুরু থেকে আকাশে উড়তে থাকে। কিন্তু উড়ন্ত হেলিকপ্টারের সাথে সময় বাড়ার সাথে সাথে পাল্লা দিয়ে এগিয়েছে জাকির হোসেনের আনারস এবং শামীমের মোটর সাইকেল।

বিশেষ করে শামীম আহমদ এবং পল্লব একই এলাকায় হওয়ায় দক্ষিণ অঞ্চলের প্রভাব কিছুটা হলেও পল্লবের প্রতিকুল অবস্থানে চলে যায়। একইভাবে উপজেলার লাউতা ইউনিয়নের সোনাই নদীর তীরবর্তী এলাকা জাকির হোসেনের আনারস শক্ত অবস্থান তৈরী হওয়ায় লাউতা ইউনিয়নে পল্লবের নিরঙ্কুষ অবস্থানে ধ্বস নামে। সময়ের সাথে সাথে আওয়ামী লীগের নিরব নেতাকর্মী নৌকার দিকে ঝুঁকতে থাকায় বেশি প্রভাব পড়ে পল্লবের হেলিকপ্টারে। তারপরেও পল্লবের অবস্থান অন্য সকল প্রার্থীদের চেয়ে দক্ষিণে ভাল রয়েছে। লাউতা ও মোল্লাপুর ইউনিয়ন থেকে তিনি সর্বাধিক ভোট পাবেন। কিন্তু প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থীরা কাস্ট ভোটের ৩০ ভাগ ভোট টেনে নিলে এর প্রভাব পড়বে হেলিকপ্টারের জয় পরাজয়ে।
এছাড়া আবুল কাশেম পল্লবের কর্মী-সমর্থকদের উপজেলার সকল ইউনিয়নের ছড়িয়ে থাকায় নির্বাচনে হেলিকপ্টারের বিজয়ের সম্ভাবনা দেখছেন অনেকেই।

আনারস প্রতীক নিয়ে চমক দেখাতে চান প্রথম বারের মতো নির্বাচনে অংশ নেয়া জাকির হোসেন। অল্প সময়ের মধ্যে তিনি উপজেলার বেশ কয়টি ইউনিয়নের ভোটে প্রভাব ফেলেছেন। বিশেষ করে পৌর সভার ১ থেকে ৭ নম্বর ওয়ার্ডে প্রচারণার মধ্য সময় থেকে ভোটাররা তার দিকে ঝুঁকতে থাকে। যদিও শেষ পর্যন্ত এ সাত ওয়ার্ডে তার আনারসে অবস্থান কিছুটা হলেও টলেছে। এছাড়া আলীনগর, দুবাগ, তিলপাড়া ও লাউতায় রয়েছে জাকির হোসেনের আনারস মার্কার শক্ত অবস্থান। পারিবারিক অবস্থানের কারণে উপজেলার বিভিন্ন অঞ্চলেও তার একটি নিজস্ব ভোট ব্যাংক গড়ে উঠেছে। তবে পৌরসভার ৭ ওয়ার্ডের ৫ কেন্দ্রের প্রাপ্ত ভোটের অবস্থানের উপর নির্ভর করবে নির্বাচনে তাঁর জয়-পরাজয়ের বিষয়টি।

এবারের উপজেলা নির্বাচনে একমাত্র চমক স্বতন্ত্র প্রার্থী শামীম আহমদের মোটর সাইকেল। নির্বাচনের শুরুতে মোটর সাইকেলের অবস্থান কিছুটা হলেও মন্থর ছিল। কিন্তু কর্মী-সমর্থক এবং নির্বাচনে অংশ না নেয়া রাজনৈতিক দলের আনুকল্যে শামীম আহমদের মোটর সাইকেল দুরন্ত সূচনা পায়। নির্বাচন দিন পর্যন্ত তিনি সেটি ধরে রাখতে পারলে দিন শেষে চমক দেখাতে পারেন উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শামীম আহমদ। ব্যক্তি ইমেজ অন্য প্রার্থীদের চেয়ে তিনি কিছুটা হলেও এগিয়ে রয়েছেন। তার ভোটের মাঠে অপরিচিত হওয়ায় কিছুটা হলেও তাকে শুরুতে বেগ পেতে হয়েছে।

স্বতন্ত্র এ তিন প্রার্থীর যে কোন একজন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন নৌকার প্রার্থী আতাউর রহমান খানের সাথে। নৌকার সাথে শেষ পর্যন্ত তিন প্রার্থীর হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হবে।

A+ A-
Print Friendly, PDF & Email

সর্বশেষ সংবাদ

প্রতিদ্বন্দ্বি খছরুল হক’র বাড়িতে ভাইস চেয়ারম্যান জামাল

গোলাপগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ৪ প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত

বিলপার প্রিমিয়ার লিগের ৫ম আসরের ফাইনাল আগামীকাল বৃহস্পতিবার

বিয়ানীবাজার-বহরগ্রাম সড়কে বৈদ্যুতিক খুঁটি, ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করছেন স্থানীয়রা

বিয়ানীবাজারের কুশিয়ারা নদীতে জেলেদের জালে বিশাল বাঘ আইড়

বড়লেখায় ভাইস চেয়ারম্যান পদে ১৭৫ ভোটে জয়ী তাজ

ঘোষণাঃ