২০শে অক্টোবর, ২০১৮ ইং | ৫ই কার্তিক, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

বিয়ানীবাজার সিএনজি চালকদের কাছে অসহায় যাত্রীরা- প্রতিদিন ঘটছে অপ্রীতিকর ঘটনা

https://i0.wp.com/beanibazarnews24.com/wp-content/uploads/2018/05/cng.jpg?resize=720%2C395

বিয়ানীবাজার পৌরশহরের সবগুলো সিএনজি স্ট্যান্ডে সাধারণ যাত্রিরা হয়রানির শিকার হওয়ার অভিযোগ উঠেছে। একই সাথে সড়কের চালকদের বেপরোয়া গতিতে গাড়ি চালানোর কারণে প্রায়ই ঘটছে দুর্ঘটনা। এতে বিভিন্ন সময় পথচারিরা সিএনজির ধাক্কায় আহত হচ্ছেন।

সবগুলো স্ট্যান্ডে চালক ব্যবহার একটি গন্ডির মধ্যে থাকলেও পৌরশহরের দক্ষিণবাজার সিএনজি স্ট্যান্ডের চালকদের আচার-ব্যবহারে অতিষ্ট স্থানীয়রা। অশালীন আচরণ ও কথাবার্তার কারণে প্রায়ই যাত্রিদের সাথে চালকদের বাগবিতণ্ড ঘটে। এমনকি এসব বাগবিথন্ডা হাতাহাতি পর্যায়ে পৌঁছায়।

যেখানে সেখানে গাড়ি থামিয়ে যাত্রীদের সাথে অশালীন আচরণ করা, বেপরোয়া গতিতে গাড়ি চালনানোসহ বিভিন্ন অনৈতিক কাজেও লিপ্ত রয়েছেন দক্ষিণবাজার স্ট্যান্ডের কতিপয় চালকরা। আর এদের সকল অপকর্মের ইন্দনদাতা ও সুবিধাভোগীরা হলেন স্ট্যান্ডের কতিপয় দায়িত্বশীল ব্যক্তি। তাঁর প্রশ্রয়ে এমন অপরাধমূলক কর্মকান্ডে উৎসাহিত হয়ে অপরাধ প্রবণতায় জড়াচ্ছে সাধারণ চালকরা।

গত ১৬ মে মহিলার টাকা ছিনতাই ঘটনায় পুলিশ সিএনজি চালক বদরুলকে আটক করেছে। গত শুক্রবার বিকালে থানাবাজার এলাকায় সিএনজি (মৌলভীবাজার ১১-৭৮৫৪) জোবের আহমদ নামের এক পথচারীকে ধাক্কা মেরে আহত করে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয় ধাওয়া করে কমলাবাড়ির রাস্তার মূখে তার গাড়ি আটকিয়ে উত্তেজিত জনতা প্রহার করেন। এ সিএনজির চালকের নাম আবুল হোসেন বলে জানিয়েছেন। একই দিন বেলা ৪টার দিকে দক্ষিণবাজার স্ট্যান্ডে যাত্রিবাহী একটি সিএনজি আটক করেন চালকরা। রিজার্ভ সিএনজি আটক করে চালকরা যাত্রিদের নাজেহাল করেন। এ সময় রিজার্ভ গাড়ি জানালেও রেহাই পাননি যাত্রিরা। উল্টো রিজার্ভ গাড়ি বলায় কয়েকজন চালক যাত্রিদের মারধর করার চেষ্টা করলে উপস্থিত অন্য চালকদের হস্তক্ষেপে তারা রেহাই পান।

চালকদের কাছে নাজেহাল হওয়া যাত্রি খছরুল হক বলেন, এখানে অনেকগুলো চালকদের দেখে স্বাভাবিক মনে হয়নি। আমার ধারণা তারা মাদকাসক্ত ছিল। যার কারণে আমাদের উপর চড়াও হয়েছে। এ রকম বিষয়গুলো প্রায়ই ঘটছে বলে এখানকার ব্যবসায়ীরা জানিয়েছেন। তিনি এ বিষয়ে ভোক্তা অধিকার আইনে আইনি পদক্ষেপ নেয়ার কথা ভাবছেন।

সিএনজির ধাক্কায় আহত জুবের আহমদকে স্থানীয়ভাবে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। জোবের বিয়ানীবাজার থানায় অভিযোগ দায়ের করার প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে জানান।

বিয়ানীবাজার থানার ওসি শাহজালাল মুন্সী বলেন, মাদকের বিরুদ্ধে আমরা জিরো টলারেন্স নিয়েছি। মাদকের সাথে যুক্তদের গ্রেফতারের অভিযান চলছে। তিনি বলেন, শুধু সিএনজি চালক নয়, আরও অনেক পেশার মানুষ মাদকের সাথে যুক্ত রয়েছে। শীঘ্রই তালিকা করে অভিযান চালানো হবে। তিনি দক্ষিণবাজার সিএনজি স্ট্যান্ডের যাত্রি হয়রানি সহ বিভিন্ন অভিযোগের বিষয়ে ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানিয়ে বলেন, লিখিত অভিযোগ পেলে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

A+ A-
Print Friendly, PDF & Email

সর্বশেষ সংবাদ

অস্ট্রেলিয়ায় বাংলাদেশি চিকিৎসকদের পাশে কানাইঘাটের ডা. রেজা আলী

৩৮৭ কোটি টাকা ব্যয়ে সংস্কার হবে সিলেট ওসমানী বিমানবন্দর

দাবি আদায় না হলে ২৮ ও ২৯ অক্টোবর সিলেটে পরিবহন ধর্মঘট

কাল থেকে শুরু হচ্ছে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ

গোলাপগঞ্জ পৌরসভা মেয়র পদে উপ-নির্বাচন নিয়ে যা বললেন আ.লীগের পরাজিত প্রার্থী পাপলু

বিশ্বকাপ ট্রফির সিলেট ভ্রমণ

ঘোষণাঃ