২৭শে মে, ২০১৮ ইং | ১৩ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

বিয়ানীবাজারে দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে যুবকের মৃত্যু

https://i0.wp.com/beanibazarnews24.com/wp-content/uploads/2017/11/11111.png?resize=720%2C400

বিয়ানীবাজারে দুবৃত্তের ছুরিকাঘাতে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। আজ শনিবার সকাল ১১টার পর এ ঘটনা ঘটে। মোকাম মসজিদের সামনে নিহত যুবক পান খেতে গেলে দুর্বৃত্তরা তাকে ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায়। নিহত যুবকের নাম আনোয়ার হোসেন। সে সুপাতলা গ্রামের সিরাজ উদ্দিনের পুত্র এবং ফ্রান্স আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আলী হোসেনের ভাই।

পুলিশ ঘাতক যুবকের ছোট ভাই পাভেল আহমদকে গ্রেফতার করেছে। আনোয়ারকে খুন করেছে সায়েলের বড়ভাই রায়েল। সে কসবা কোনাপাড়া এলাকার সবজি বিক্রেতা পঙ্খির ছেলে। প্রত্যেক্ষদর্শীরা সায়েল আটকের বিষয়টি জানিয়েছেন। তবে পুলিশ এখনো আনুষ্ঠানিকভাবে কিছু জানায়নি। তবে কি কারণে এ হত্যা কান্ড তা কেউ বলতে পারছেন না। এ দুই যুবকের মধ্যে কোন বিরোধের বিষয়টিও জানাতে পারেননি নিহত আনোয়ারের স্বজনরা।

বিয়ানীবাজার থানার (ওসি  তদন্ত) জাহিদুল হক বলেন, খুনের ঘটনায় এখনো আমরা অন্ধকারে রয়েছি। একজনকে আটক করা হয়েছে। তিনি এর বেশি কিছু এই মুহূর্তে বলতে পারবেন না বলে জানান।

হাসপাতালের জরুরী বিভাগে বেডে আনোয়ারের নিথর দেহ, আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেয়ার মুহূর্ত

জানা যায়, পান খাওয়ার জন্য মোকাম মসজিদের সামনের একটি পান দোকানের সামনে দাঁড়িয়ে ছিলো। এ সময় কোথায় থেকে এ তরুণ এসে কোন কিছু না বলে তার বুক বরাবর ছুরি চালায়। একটি কুপ দিয়ে ওই দুর্বৃত্ত পালিয়ে যায়। আনোয়ার মাটিতে লুটিয়ে পড়লে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে তাকে হাসপাতালের জরুরী বিভাগে নিয়ে যান। সেখানে নেয়ার পর কর্তব্যরত ডাক্তার মৃত ঘোষণা করেন।

উপজেরা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ডাক্তার শাহরিয়ার বলেন, তার বুকের বাম পাশের শেষ পাজরের কাছে গভীর ক্ষত রয়েছে। অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে তার মৃত্যু হতে পারে আমাদের ধারণা। এখানে নিয়ে আসার আগেই সে মৃত্যু কোলে ঢলে পড়ে।

হাসপাতালের জরুরী বিভাগের ভেতরে পুলিশ, কর্তব্য ডাক্তার, পৌর মেয়রসহ আনোয়ারের স্বজন

ছুরিকাঘাতের খবর পেয়ে হাসপাতালে ছুটে যান বিয়ানীবাজার উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আতাউর রহমান খান, পৌর মেয়র আব্দুস শুকুর, শিক্ষামন্ত্রীর এপিএস মাকসুদুল ইসলাম আউয়ালম চেয়ারম্যান সিহাব উদ্দিন। এর আগে খবর পেয়ে বিয়ানীবাজার থানার ওসি মো. শাহজালাল মুন্সী, ওসি তদন্ত জাহিদুল হকসহ থানা পুলিশ হাসপাতালে ছুটে যান।

আনোয়ারের মৃত্যু সংবাদ ছুটে হাসপাতালে তাঁর স্বজনরা ছুটে আসেন। এ সময় এক মর্মান্তিক দৃশ্যের অবতারণা হয়। সকলের কান্নার হাসপাতালের বাতাস ভারী হয়ে ওঠে। মৃত্যু সংবাদ শুনে হাসপাতালে উৎসুক জনতা ভীড় করেন। এ সময় উৎসুক মানুষকে সামাল দিতে পুলিশ প্রবেশ পথে নজরদারি বাড়ায়।

আনোয়ারের মৃত্যু সংবাদ শুনে হাসপাতালে ছুটে আসেন আনোয়ারের ভাই

এ দিকে দুর্বৃত্তদের খোঁজে পুলিশের কয়েকটি দল পৌরশহর ও আশপাশ এলাকায় অভিযান চালাচ্ছে। পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে গিয়ে তদন্ত করছে।

বিয়ানীবাজার থানার ওসি শাহজালাল মুন্সী বলেন, ঘাতক কে এখনো জানা যায়নি। লাশের সুরত হাল সম্পন্ন করে ময়না তদন্তের জন্য সিলেট ওসমানি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হবে।

A+ A-
Print Friendly, PDF & Email

সর্বশেষ সংবাদ

ওসমানি হাসপাতালের সাবেক উপপরিচালক ডা. সালামসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে দুদক’র মামলা

গোলাপগঞ্জে প্রতিপক্ষের হামলায় নিজ ক্ষেতে ৩ ভাই আহত

সিলেটে বজ্রপাতে তিন ভাইয়ের মৃত্যু

গোলাপগঞ্জে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযানে ৪টি প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা

বিয়ানীবাজার সিএনজি চালকদের কাছে অসহায় যাত্রীরা- প্রতিদিন ঘটছে অপ্রীতিকর ঘটনা

ভারতে অনুপ্রবেশকালে কুলাউড়ায় শিশুসহ দম্পতি আটক

ঘোষণাঃ